সুগন্ধায় ট্রলারডুবির চার দিন পর ৩ লাশ উদ্ধার

jhalokathiboatsink3deadbody

নিউজ ডেস্ক: স্টিমারের ধাক্কায় ঝালকাঠির সুগন্ধা নদীতে ট্রলার ডুবির চার দিন পর নিখোঁজ তিন যাত্রীর লাশ নদী থেকে উদ্ধার করা হয়েছে।

ঝালকাঠি সদর থানার পরিদর্শক (অপারেশন) মো. মাহে আলম জানান, মঙ্গলবার সকালে তিনজনের লাশ নদীতে ভেসে উঠলে উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল।

ঝালকাঠি শহরের পৌর খেয়াঘাট সংলগ্ন সুগন্ধা নদীতে শুক্রবার সকাল সাড়ে সাতটার দিকে স্টিমারের ধাক্কায় ট্রলার ডুবে তিনজন নিখোঁজ হন।

তারা হলেন- ঝালকাঠি সদর উপজেলার পোনাবালিয়া ইউনিয়নের ইছালিয়া গ্রামের রাজ্জাক মল্লিক রাজা (৩২), দেউরি গ্রামের তসলিম হাওলাদার (৫০) ও মহদিপুর গ্রামের আলম জমাদ্দার (৪৫)।

পরিদর্শক আলম বলেন, মঙ্গলবার সকাল ৭টার দিকে ঝালকাঠি শহরের কলেজ খেয়াঘাট সংলগ্ন দুর্ঘটনাকবলিত স্থানে ভেসে ওঠে রাজ্জাক ও আলমের লাশ। পরে সকাল ৮টার দিকে জেলার রাজাপুর উপজেলার মানকী গ্রামের বিশখালি নদী থেকে উদ্ধার করা হয় ভেসে থাকা তসলিমের লাশ।

গত শুক্রবার ভোরে ঝালকাঠি সদর উপজেলার পোনাবালিয়া ইউনিয়নের রাজাপুর গ্রামের সুগন্ধা নদীর খেয়াঘাট থেকে জেলা শহরের পৌরসভা খেয়াঘাটে আসছিল ট্রলারটি। কলেজ খেয়াঘাটের কাছে পৌঁছালে ঢাকা থেকে খুলনাগামী স্টিমার মধুমতীর সঙ্গে ধাক্কা লেগে মাঝ নদীতে ১১ জন যাত্রী নিয়ে ডুবে যায়। এ সময় চালকসহ আট যাত্রীকে জেলেরা উদ্ধার করলেও তিনজন নিখোঁজ হন।

নিহতরা ঝালকাঠিতে নির্মাণ শ্রমিকের কাজ করতেন। ঘটনার দিন কাজের উদ্দেশে জেলা শহরে যাচ্ছিলেন।

– বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like