চকরিয়ায় তামাক চাষী ও আদিবাসী জনগোষ্ঠীর চিকিৎসা সেবা সম্পর্কে সভা

chakaria-picture-26-10-2016

চকরিয়া প্রতিনিধি, ২৭ অক্টোবর: চকরিয়ায় তামাক চাষ এলাকার মানুষ ও আদিবাসী জনগোষ্ঠীর চিকিৎসা সেবা সম্পর্কে পর্যালোচনা শীর্ষক এক মতবিনিময় সভা অনুষ্টিত হয়েছে। উন্নয়ন বিকল্পের নীতিনির্ধারণী গবেষনা প্রতিষ্টান উবিনীগ ও স্বাস্থ্য আন্দোলনের আয়োজনে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্টিত হয়।
বুধবার সকালে চকরিয়া উপজেলা হাসপাতালের কনফারেন্স রুমে অনুষ্টিত সভায় চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী, কলেজের অধ্যাপক, এনজিও প্রতিনিধি, স্কুলের শিক্ষক, জনপ্রতিনিধি, সাংবাদিক, কৃষক, নারী নেতৃবৃন্দ, তাবিনাজ নেটওয়ার্ক সদস্য, পৌর কাউন্সিলর, উবিনীগ কর্মীসহ অনেকেই সভায় অংশগ্রহন করেন।
অনুষ্টিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন- চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আব্দুস ছালাম। সভায় প্রারম্ভিক বক্তব্য রাখেন- উবিনীগের আঞ্চলিক সমন্বক রফিকুল হক টিটো। পরে মুক্ত আলোচনা শুরু হয়। আলোচনা পর্বে মোট ১৬ জন অংশ নেন।
বক্তারা তামাক চাষের কারণে খাদ্য ফসলের ঘাটতি, জমির উর্বরতা কমে যাওয়া, বন উজাড়, নদী ভরাট, মানুষের স্বাস্থ্য ঝুকি বিশেষত গর্ভবতী মা ও শিশুদের স্বাস্থ্য সমস্যা, তামাক চাষে নারী ও শিশু শ্রমের ব্যাবহার, তামাক চাষে চিকিৎসা ব্যায়, আদিবাসীদের চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে করণীয়, সেবা পাওয়ার ক্ষেত্রে দাইঘর, কমিউনিটি ক্লিনিক, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কেন্দ্র উপজেলা হাসপাতালের জনবল, সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে দূর্বলতা গুলো নিয়ে বিশেষভাবে আলোচনা করা হয়।
অনুষ্টানে প্রধান অতিথি ডা.আবদুস ছালাম তামাক কি ভাবে মানবদেহের ক্ষতি সাধন করে তা বিষদ ভাবে ব্যাখ্যা করেন এবং পুষ্টির উপর বিশেষ ভাবে জোর দেন। একটানা ৪ ঘন্টা প্রাণবন্ত আলোচনার শেষে উপস্থিত সবাই তামাক চাষকে না বলে সুস্থ্য ও সুন্দর জীবন যাপনের জন্য দূষন মুক্ত পরিবেশ গড়ে তোলার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যাক্ত করেন।
সভায় আলোচনায় অংশগ্রহন করেন, চকরিয়া উপজেলা হাসপাতালের গাইনি বিভাগের কনসালট্যান্ট ডা. মর্তুজা বেগম রানু, চকরিয়া সরকারী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের সহকারী অধ্যাপক পদ্মলোচন বড়ুয়া, সহকারী অধ্যাপক একেএম শাহাব উদ্দিন, সাংবাদিক এম.আর মাহমুদ, ও জহিরুল ইসলাম, কাকারা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শওকত উসমান, পালাকাটা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা হুরে জান্নাত মিলি, একলাব এর প্রজেক্ট ম্যানেজার মাহ্বুবুর রহমান ভূইয়া, সার্ভ আঞ্চলিক সমন্বয়কারী কাজী মাকসুদুল আলম মুহিত, সাংবাদিক মো: জাহেদ, স্বাস্থ্য পরিদর্শক হাসান মুরাদ, তাবিনাজ নেটওয়ার্কের সদস্য শাহানা বেগম, এএসসি প্রধান নির্বাহী মো: নোমান ও নারী উদ্যোক্তা পরিষদের সভানেত্রী উম্মে কুলসুম মিনু।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like