সন্ত্রাস দমনে মানবাধিকার নিশ্চিত করতে হবে

রোববার (০২ অক্টোবর) ঢাকায় অনুষ্ঠিত দুদেশের মধ্যকার পঞ্চম নিরাপত্তা সংলাপে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। দিনব্যাপী এ সংলাপে  নিরাপত্তার ক্ষেত্রে দুদেশ অংশীদারিত্ব ও সহযোগিতা আরও ঘনিষ্ঠ ও গভীর করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় রোববার দিনব্যাপী এ সংলাপে বাংলাদেশের নেতৃত্ব দেন অতিরিক্ত পররাষ্ট্র সচিব (দ্বিপাক্ষিক ও কনস্যুলার) কামরুল আহসান ও যুক্তরাষ্ট্র প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের প্রিন্সিপাল ডেপুটি অ্যাসিসটেন্ট সেক্রেটারি ইউলিয়াম জিপি মোনাহাম।

এছাড়া ঢাকার মার্কিন রাষ্ট্রদূত মার্শা বার্নিকাটসহ দু’দেশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা এ সংলাপে অংশ নেন।

রাতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে জানায়, সংলাপে নিরাপত্তা অংশীদারিত্বের সবগুলো দিক নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে। কৌশলগত অগ্রাধিকার, আঞ্চলিক নিরাপত্তা, প্রতিরা সহযোগিতা, বেসামরিক নিরাপত্তা সহযোগিতা, জাতিসংঘ শান্তিরক্ষ‍া মিশন, সন্ত্রাস দমন ও সহিংস উগ্রবাদ দমন ইস্যু আলোচনায় স্থান পায়।

অভিন্ন ও পারস্পরিক নিরাপত্তা সংকট রয়েছে এমন বিভিন্ন ক্ষেত্রে বাংলাদেশকে আরও বেশি সহযোগিতা দেবে বলে জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

জানা যায়, এ নিরাপত্তা বৈঠকে মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গিসংগঠন আইএসসহ সন্ত্রাসের অভিন্ন হুমকি সম্পর্কে আলোচনা করা হয়। সন্ত্রাস প্রশ্নে বাংলাদেশ সরকারের ‘জিরো টলারেন্স’ নীতির এবং অন্যদেশের সন্ত্রাসের জন্য বাংলাদেশের ভূমি ব্যবহার করতে না দেওয়ার অবস্থানের ভূয়সী প্রশংসা করেন যুক্তরাষ্ট্র।

গত ১ জুলাই গুলশানে হলি আর্টিজান রেস্টুরেন্টে হামলার পর সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড শক্ত হস্তে দমন ও ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশে বিশেষায়িত ‘কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের প্রশংসা করা হয়। এছাড়া জাতিসংঘ শান্তিরক্ষ‍া মিশনের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক শান্তি ও নিরাপত্তা রায়ে অবদান রাখায় ধন্যবাদ জানান মার্কিন কর্মকর্তারা।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানায়, দুর্যোগ প্রতিরোধ ও প্রস্তুতির সহায়তা এবং উপকূলীয় অঞ্চলে ৬শ বহুমুখী সাইকোন আশ্রয় কেন্দ্র স্থাপনের জন্য যুক্তরাষ্ট্রকে ধন্যবাদ জানান বাংলাদেশের কর্মকর্তারা। সমুদ্র সীমায় দুস্যতা ও অন্যান্য অপরাধ দমনের জন্য বাংলাদেশ কোস্ট গার্ডকে অত্যাধুনিক দ্রুত যান বোট দেওয়ায়ও ধন্যবাদ জানানো হয়।

এছাড়া সংলাপে শান্তি রক্ষা, উগ্রবাদ দমন ও সন্ত্রাস নিয়ন্ত্রণে প্রশিক্ষণ, সরঞ্জাম প্রদানে আরও সহায়তা চেয়েছে বাংলাদেশ।

-বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like