চকরিয়া পৌর কাউন্সিলর নজরুলকে অপহরণের ২ঘন্টা পর উদ্ধার

images-pic

চকরিয়া প্রতিনিধি, ২৯ সেপ্টেম্বর: কক্সবাজারের চকরিয়া পৌরসভার ৯ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ও ওয়ার্ড যুবলীগ সভাপতি নজরুল ইসলামকে (৩৮) সশস্ত্র দুর্বৃত্তরা অপহরণের দুই ঘন্টা পর উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার দিবাগত রাত বারোটার দিকে পৌর বাস টার্মিনালস্থ নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে থেকে ১০-১২ জনের একদল মুখোশ পরিহিত দুর্বৃত্ত তাকে অপহরণ করে। এর পরই তাকে উদ্ধারে পুলিশ অভিযান শুরু করে। একপর্যায়ে পুলিশের প্রতিরোধের মুখে অপহরণের দুই ঘন্টা পর পৌরসভার উলুঘুনিয়া এলাকায় থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়।
এ ঘটনায় অপহরণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ এনে কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে ১৭ জনের নাম উল্লেখ করে চকরিয়া থানায় মামলা দায়ের করেছে। মামলায় প্রধান আসামী করা হয়েছে- পৌরসভার ৯ নম্বর ওয়ার্ডের পশ্চিম দিগরপানখালী গ্রামের মৃত সোলেমানের ছেলে ইয়াবা ব্যবসায়ী জিয়া উদ্দিন বাবুলকে। এছাড়াও তার দুইভাই সহ আরো ৯ জনের নাম উল্লেখ করা হয় মামলার এজাহারে। অন্য ৬-৭ জনকে অজ্ঞাত আসামী দেখানো হয়েছে।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, ১০-১২ জনের একদল মুখোশ পরিহিতি সশস্ত্র দুর্বৃত্ত কাউন্সিলর নজরুলকে অপহরণ করে নিয়ে যাওয়ার সময় দুই রাউন্ড ফাঁকা গুলিও ছুড়ে। এর পর তাকে একটি চাঁদের গাড়িতে করে মহাসড়কের দক্ষিণ দিকে নিয়ে যায়। এ সময় গাড়িটি ফাঁসিয়াখালী রাস্তার মাথা এলাকায় গেলে সড়কের কিনারায় একপাশ দেবে দুর্ঘটনায় পতিত হয়। এ ঘটনার সংবাদ পেয়ে পুলিশ পিছু নেয়। পিছু নেওয়া পুলিশ ওই গাড়ি থেকে একটি লম্বা দা ও এক জোড়া জুতা উদ্ধার করে। এর আগেই দুর্বৃত্তরা কাউন্সিলর নজরুল ইসলামকে নিয়ে অজ্ঞাত স্থানে চলে যায়। এর পর বিপুল সংখ্যক পুলিশ নজরুলকে উদ্ধারে একযোগে বিভিন্নস্থানে তল্লাশী শুরু করে।
চকরিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. কামরুল আজম জানান, অপহরণকারীরা নজরুলকে যে গাড়িতে তুলে অপহরণ করেছিল, সেই গাড়িটি এবং একটি রাম দা ও একজোড়া সেন্ডেল উদ্ধার করা হয়।
অপহৃত নজরুল ইসলাম জানান, জিয়াউদ্দিন বাবুল নামের এক ব্যক্তি দীর্ঘদিন ধরে ইয়াবা ব্যবসায় লিপ্ত রয়েছে। এতে এলাকার পরিবেশ মারাত্মকভাবে বিষিয়ে উঠেছে। তার এই কর্মকা-ের প্রতিবাদ করায় মূলত হত্যার উদ্দেশ্যেই তাকে অপহরণ করা হয়েছিল। অপহরণ করার পর তাকে বন্দুকের বাট দিয়ে বেধড়ক পিটিয়ে আহত করে।
চকরিয়া থানার ওসি মো. জহিরুল ইসলাম খান বলেন, এ ঘটনায় কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে ইয়াবা ব্যবসায়ী জিয়া উদ্দিন বাবুলসহ ১৭ জনকে আসামী করে লিখিত এজাহার দেওয়ার পর তা মামলা হিসেবে রুজু করা হয়। আসামীদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like