ব্র্যাঞ্জেলিনার বিচ্ছেদ: মুখ খুললেন মারিয়ন

maxresdefault

বিনোদন ডেস্ক: ব্র্যাড পিট ও অ্যাঞ্জেলিনা জোলির ১২ বছরের সম্পর্কের অবসান ঘটতে চলেছে বিয়ে বিচ্ছেদের মাধ্যমে- এমন খবর ছড়িয়ে পড়ার সঙ্গে সঙ্গেই সন্দেহের তীর ছুটে গিয়েছিল ফরাসি অভিনেত্রী মারিয়ন কোতিয়াহ্-এর দিকে। অস্কারজয়ী এই অভিনেত্রীর সঙ্গে পরকীয়ার কারণেই নাকি পিটকে ছেড়ে যাচ্ছেন জোলি- এমন গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল গত কদিন ধরেই। এবার সব গুঞ্জনের কড়া জবাব দিলেন মারিয়ন নিজেই।

মারিয়নকে ঘিরে সন্দেহের আগুনে ঘি ঢেলেছিল, সম্প্রতি ক্লোজার পত্রিকাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তার দ্বিতীয়বারের মতো অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার তথ্যটি। গুজব ছড়িয়েছিল, এই সন্তানের বাবা, আর কেউ নন, স্বয়ং ব্র্যাড। মুক্তির অপেক্ষায় থাকা ছবি ‘অ্যালাইড’-এর শুটিং চলাকালেই নাকি একে অপরের প্রেমে জড়িয়েছিলেন তারা, আর তারই ফসল এই সন্তান- এমনসব মুখরোচক গুজবে সয়লাব ছিল গণমাধ্যম।

সবকিছু দেখে শুনে মারিয়ন ইন্সটাগ্রামে দেওয়া এক পোস্টের মাধ্যমে খোলসা করেছেন সবকিছুর। জানিয়েছেন, তার দ্বিতীয় সন্তানের বাবা তার দীর্ঘদিনের সঙ্গী ফরাসী অভিনেতা ও নির্মাতা গিইয়ুম ক্যানে।

প্রকাশিত ওই পোস্টে মারিয়ন লিখেছেন, “ ২৪ ঘন্টা আগে যে খবরটি প্রকাশিত হয়েছে, সেটির বিপরীতে এটি হতে যাচ্ছে আমার প্রথম ও একমাত্র প্রতিক্রিয়া। আমি এই ধরণের বিষয়ে মন্তব্য করতে অভ্যস্ত নই, এসব বিষয়কে গুরুত্বও দিইনা আমি; কিন্তু যেহেতু এটি আমার ভালোবাসার মানুষগুলোকে ক্ষতিগ্রস্ত করছে, সেহেতু আমাকে মুখ খুলতেই হচ্ছে।”

“প্রথমত, অনেক বছর আগেই আমার ভালোবাসার মানুষটির সন্ধান পেয়েছিলাম; সেই আমার পুত্রের বাবা, আমরা এখন আমাদের দ্বিতীয় সন্তানেরও আশায় আছি। সেই আমার ভালোবাসা, আমার সবচেয়ে ভালো বন্ধু এবং আমার প্রয়োজন একমাত্র তাকেই,” নিজের সন্তানের বাবা কে- এই প্রশ্নের উত্তর এভাবেই দিয়েছেন মারিয়ন।

তিনি আরও লিখেন, “দ্বিতীয়ত, যারা বলছেন, আমি ভেঙে পড়েছি, তাদেরকে বলছি, আমি খুবই ভাল আছি, ধন্যবাদ। এই ধরণের মিথ্যা কথপোকথন আমাকে ভাবায়না। এবং গণমাধ্যম ও নিন্দুকেরা, যারা খুব তাড়াতাড়ি মনগড়া সিদ্দান্তে পৌঁছে গেছেন, তাদেরকে বলছি, আমি সত্যিই আপনাদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করছি।”

সবশেষে ব্র্যাড পিট ও অ্যাঞ্জেলিনা জোলির জন্য শুভকামনা জানিয়ে তিনি লিখেন, “ আমি সত্যিই চাই যে, ব্র্যাড ও অ্যাঞ্জেলিনা, (যাদেরকে আমি খুবই শ্রদ্ধা করি) যেন, এই ভয়ঙ্কর সময়েও শান্তি খুঁজে পাক।”

২০০৭ সাল থেকে মারিয়ন একত্রে বসবাস করছেন গিইয়ুম ক্যানের সঙ্গে। একসঙ্গে মার্সেল নামে তাদের ৫ বছর বয়সী একটি ছেলেও রয়েছে। তবে আনুষ্ঠানিকভাবে এখনও বিয়ে করেননি তারা।

রবার্ট জেমেকিজ-এর পরিচালনায় ‘অ্যালাইড’ ছবিতে একে অপরের প্রেমে পড়ে যাওয়া দুই আততায়ীর ভূমিকায় অভিনয় করেছেন মারিয়ন ও ব্র্যাড। সিনেমাটি মুক্তি পাবে নভেম্বরের ২৩ তারিখ।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like