মুম্বাইয়ের বিপক্ষেও মুস্তাফিজ চমক

Haydrabad-win-bg20160508200545

ক্রীড়া ডেস্ক:  চলমান আইপিএলের ৩৭তম ম্যাচে আরও একটি জয় তুলে নিয়েছে বাংলাদেশি পেসার মুস্তাফিজুর রহমানের দল সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদ। টাইগার এই পেসারের দুর্দান্ত বোলিং আর শিখর ধাওয়ানের দারুণ ব্যাটিংয়ে রোহিত শর্মার মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সকে ৮৫ রানে হারিয়েছে হায়দ্রাবাদ।

মুম্বাইয়ের বিপক্ষে তিন উইকেট নেওয়া মুস্তাফিজের শিকারে সাজঘরে ফেরেন হারদিক পান্ডে, টিম সাউদি আর ম্যাকক্লেনাঘেন। এ ম্যাচেও কাটার এই মাস্টার তার বোলিং চমক দেখান। তিন ওভার বল করার সুযোগ পেয়ে প্রতিপক্ষকে দিয়েছেন দুর্দান্ত স্লোয়ার, ইয়র্কার আর কাটার।

রোববারের (০৮ মে) ম্যাচে জয়ের ফলে ৯ ম্যাচ খেলা মুস্তাফিজের দল ৬টিতে জয় পেয়েছে। আর তাতে দলটির সংগ্রহ বেড়ে দাঁড়ায় ১২ পয়েন্ট। পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষস্থানটিও দখল করে হায়দ্রাবাদ (কলকাতা ও গুজরাট ম্যাচের আগ পর্যন্ত)।

আগে ব্যাট করা হায়দ্রাবাদ ২০ ওভারে তিন উইকেট হারিয়ে তোলে ১৭৭ রান। জবাবে, মুস্তাফিজ-আশিষ নেহারার বোলিং তোপে পড়ে ১৬.৩ ওভারে মাত্র ৯২ রানেই গুটিয়ে যায় মুম্বাই।

হায়দ্রাবাদের দলপতি-ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার ৩৩ বলে ৭টি চার আর একটি ছক্কায় করেন ৪৮ রান। আরেক ওপেনার শিখর ধাওয়ান ৫৭ বলে ১০টি চার আর একটি ছক্কায় ৮২ রান করে অপরাজিত থাকেন।

তিন নম্বরে নামা কেন উইলিয়ামসন ২ রান করে বিদায় নেন। চার নম্বরে ব্যাটিংয়ে নেমে যুবরাজ সিং মাত্র ২৩ বল মোকাবেলা করে তিনটি বাউন্ডারি আর দুটি ওভার বাউন্ডারিতে করেন ৩৯ রান।

মুম্বাইয়ের হয়ে ৪ ওভারে ২৯ রান খরচায় দুটি উইকেট নেন হরভজন সিং। একটি উইকেট পান মিচেল ম্যাকক্লেনাঘেন।

১৭৮ রানের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই বিপাকে পড়ে মুম্বাই। নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকা দলটির ওপেনার ও দলপতি রোহিত শর্মা ৫, পার্থিব প্যাটেল ০, আম্বাতি রাইডু ৬, ক্রুনাল পান্ডে ১৭, জোস বাটলার ২, পোলার্ড ১১, হারদিক পান্ডে ৭, টিম সাউদি ৩, জাসপ্রিত বুমরাহ ৬ আর ম্যাকক্লেনাঘেন ৮ রান করে বিদায় নেন।

হরভজন সিং অপরাজিত ২১ রান করলে পরাজয়ের ব্যবধান কিছুটা কমায় মুম্বাই। ১৬.৩ ওভারে গুটিয়ে যায় মুম্বাইয়ের ইনিংস।

হায়দ্রাবাদকে দ্রুত গুটিয়ে দিতে মুস্তাফিজ ৩ ওভারে তুলে নেন তিনটি উইকেট। একটি মাত্র বাউন্ডারি হজম করে খরচ করেন মাত্র ১৬ রান। তার ১৮ বলের ৮টি বল থেকেই কোনো রান নিতে পারেননি মুম্বাই ব্যাটসম্যানরা।

হায়দ্রাবাদের হয়ে ভুবনেশ্বর কুমার ৩ ওভারে ২৩ রান দিয়ে নেন একটি উইকেট। আশিষ নেহারা ৩ ওভারে ১৫ রানের বিনিময়ে নেন তিনটি উইকেট। বারিন্দ্রার স্রান ৩.৩ ওভারে ১৮ রান খরচায় তুলে নেন দুটি উইকেট। আর বাকি একটি উইকেট দখল করেন ৪ ওভারে ১৮ রান দেওয়া হেনরিকস।

-বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like