যৌন নির্যাতক শিক্ষকের চাকরিচ্যুতি চায় আহসানউল্লাহ’র শিক্ষার্থীরা

2016_04_30_14_52_14_AllOvTeDZLKkIjM2QRRdMzKFnyhly4_original

শিক্ষা ডেস্ক: যৌন হয়রানির দায়ে অভিযুক্ত রাজধানীর আহসানউল্লাহ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক মাহফুজুর রশীদ ফেরদৌসকে স্থায়ীভাবে চাকুরিচ্যুত করাসহ চার দফা দাবিতে বিক্ষোভ আন্দোলন করছে শিক্ষার্থীরা।

শনিবার (৩০ এপ্রিল) সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে শিক্ষার্থী জড়ো হতে শুরু করে। এ আন্দোলনে রাজধানীর অন্যান্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরাও অংশ নিয়েছে। শিক্ষার্থীদের চাপের মুখে উপাচার্যের নেতৃত্বে জরুরি বৈঠকে বসে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। বৈঠক শেষে অভিযুক্ত শিক্ষককে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করার খবর জানানো হলে বিক্ষোভে ফেটে পড়ে উপস্থিত শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীদের চারদফা দাবিগুলো হলো: অভিযুক্ত শিক্ষককে স্থায়ীভাবে বরখাস্ত করতে হবে। বিদ্যমান আইনানুযায়ী অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে হবে। শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা বিধান করতে হবে। এবং অভিযুক্ত শিক্ষক যাতে কোনো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকতা করতে না পারে সে ব্যবস্থা নিতে হবে।

শিক্ষার্থীদের চার দাবি প্রসঙ্গে আহসানউল্লাহ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী সেজান মাহমুদ বলেন, ‘সাময়িক বরখাস্তের প্রহসন আমরা মেনে নেবো না। আমরা সাময়িক বরখাস্তের শাস্তি প্রত্যাখান করছি। চার দফা দাবি আমরা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে জমা দিয়েছি।’

সেজান মাহমুদ বলেন, ‘আমরা বিকেল তিনটা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে সময় বেধে দিয়েছি। এ সময়ের মধ্যে দাবি না মানলে আমরা তিনটার পরে পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করবো।’

-বাংলামেইল২৪

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like