‘সরবজিত্’ থেকে সালমানকে ইচ্ছাকৃত ভাবে বাদ দিয়েছেন ঐশ্বর্যা!

image (1)

বিনোদন ডেস্ক : সদ্য মুক্তি পেয়েছে ‘সরবজিত্’-এর ট্রেলর। যে হেতু এটি একটি বায়োপিক, তাই সকলেই এই ছবিটি থেকে সরবজিত্-এর জীবনের ওই সময়ে ঘটা সমস্ত খুঁটিনাটি, সত্যি জানতে-দেখতে চেয়েছেন। কিন্তু, বাস্তবে এমনটা হয়নি। কারণ, সরবজিত্‌কে পাকিস্তানের জেল থেকে মুক্তির জন্য গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিয়েছিলেন অভিনেতা সলমন খান। কিন্তু, ছবিতে সে প্রসঙ্গে কোনও উল্লেখ নেই। এর থেকেও বড় খবর, ঐশ্বর্যা নাকি ইচ্ছাকৃত ভাবেই এই ছবি থেকে সলমনের প্রসঙ্গটা বাদ দিয়েছেন! অন্তত এমনটাই দাবি করা হয়েছে বলিউডের একটি মিডিয়া রিপোর্টে।

পাকিস্তানে সলমনের অসংখ্য অনুরাগী রয়েছেন। তাই সরবজিতের বোন পাকিস্তানের জেল থেকে ভাইকে ছাড়িয়ে আনতে সলমনের দ্বারস্থ হন। এ ক্ষেত্রে সাহায্যের হাত বাড়াতে একটুও দ্বিধা করেননি সলমন। সরবজিৎকে জেল থেকে ছাড়িয়ে আনতে সেই সময় যথেষ্ট চেষ্টা করেছিলেন তিনি। কিন্তু, এই পুরো ঘটনার কথা বায়োপিকে কোথাও উল্লেখ করা হয়নি।

 সলমন-ঐশ্বর্যার সম্পর্ক ভেঙে গিয়েছে বহু বছর। তার পর থেকে এখনও পর্যন্ত ক্যামেরার সামনে বা কোনও পার্টিতে কখনও মুখোমুখি হননি দু’জন।  ‘সরবজিত্’-এ একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় রয়েছেন ঐশ্বর্যা। তাই সরবজিৎকে জেল থেকে ছাড়ানোর ক্ষেত্রে সলমনের চেষ্টার এই দিকটি যদি ফিল্মে দেখাতে হয়, তা হলে আবার অন স্ক্রিন মুখোমুখি হতে হবে সলমন-ঐশ্বর্যাকে। হয়তো এই ব্যাপারটা এড়িয়ে যেতেই ‘সরবজিত্’ থেকে ছেঁটে ফেলা হয়েছে সলমনের প্রসঙ্গটা। তবে এ ক্ষেত্রে ঐশ্বর্যার কতটা ভূমিকা রয়েছে তা বলা শক্ত। তবে ওই মিডিয়া রিপোর্টের দাবি যদি সত্যি হয়, সে ক্ষেত্রে এটা মানতেই হবে যে, দুই বলি তারকার ব্যক্তিগত সমস্যার কারণে একটি বায়োপিক থেকে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় বাদ পড়ল। যেটা সত্যিই দুর্ভাগ্যজনক!
-আনন্দবাজার

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like