মন্দিরে কন্ডোমের প্রোমোশন! সানির বিরুদ্ধে এফআইআর

829769_Wallpaper2

বিনোদন ডেস্ক :  বিতর্ক যেন আর পিছু ছাড়ছে না তাঁর। অস্বস্তিকর সাক্ষাৎকারের পর এ বার আইনি গেরোয় পড়লেন সানি লিওন। মন্দিরে কন্ডোম প্রোমশনের দায়ে তাঁর বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের হল৷

দিন কয়েক আগেই  মুক্তি পেয়েছে সানি লিওনির ‘মস্তিজাদে’৷ এই সেক্স কমেডিরই একটি দৃশ্যে মন্দিরের মধ্যে বিশেষ এক কোম্পানির কন্ডোম নিয়ে কথা বলতে দেখা গিয়েছে সানি এবং ছবির নায়ক বীর দাশকে৷

এই ঘটনার প্রতিবাদে সানি ও ছবির পরিচালক সহ সকল কলাকুশলীদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেন গৌরব গুলাতি নামে জনৈক ব্যক্তি৷ দিল্লির আদর্শনগর থানায় তিনি এই এফআইআর দায়ের করেছেন৷ যদিও এ নিয়ে সানি বা ছবির পরিচালক মিলাপ জাভেরি কেউই এখনও কোনও প্রতিক্রিয়া জানাননি৷

প্রীতীশ এবং রঙ্গিতা নন্দী প্রযোজিত এই সিনেমায় সানি ছাড়াও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় অভিনয় করেছেন তুষার কপূর। সানি লিওন ছবিতে দ্বৈত চরিত্রে অভিনয় করেছেন। ‘লায়লা’ এবং ‘লিলি’র ভূমিকায় দেখা গিয়েছে তাঁকে।

কয়েক মাস আগে একটি কন্ডোমের বিজ্ঞাপনে যৌন উত্তেজক দৃশ্যে শুটিং করার জন্য এক রাজনৈতিক নেতার তোপের মুখে পড়েছিলেন সানি লিওন। সে প্রসঙ্গে সানি বলেছিলেন, কন্ডোমের বিজ্ঞাপন করে তিনি কোনও ভুল করেননি।

ব্যক্তিগত ভাবে কেউ মনে করতে পারেন তাঁর এই বিজ্ঞাপন ধর্ষণ বেড়ে যাওয়ার অন্যতম কারণ। কিন্তু তিনি নিজে মনে করেন নিরাপদ যৌন মিলনের জন্যে কন্ডোমের কোনও বিকল্প নেই। কন্ডোম ব্যবহার করলে যৌন সংক্রমণের মাধ্যমে কোনও রোগ ছড়াবে না।

এ ছাড়া সন্তান না চাইলে গর্ভনিরোধক ওষুধ না খেয়ে যৌন মিলনের সময় কন্ডোম ব্যবহার করা অনেক নিরাপদ। তাই সেফ সেক্সের প্রচার করে তিনি কোনও ভুল করেননি।

কিন্তু তথাকথিত সমাজ রক্ষকরা ভারতে যে কোনও বিষয়ের জন্যই কেন সানিকে দায়ি করেন? নায়িকার নিজের কাছেও এর কোনও উত্তর নেই। তাঁর কথায়, ‘‘আমি নিজেকে অনেক বার এই প্রশ্ন করেছি। বোঝার চেষ্টা করেছি আমার দোষ কোথায়। কিন্তু কোনও উত্তর পাইনি।’’

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like