বাংলাদেশে আসছে জাপানের গায়না

Coxs Pic Gaina-2নিজস্ব প্রতিবেদক, কক্সবাজারটাইসমডটকম, ০৭ ফেব্রুয়ারি : ঘরের কক্ষের দেওয়ালে লাগানো রঙই  গরমকালে ১০ ডিগ্রী পর্যন্ত তাপমাত্রা কমাবে আবার শীতকালে দেবে উঞ্চতা। অগ্নি প্রতিরোধক হিসাবে কাজ করবে,ক্ষতিকর শব্দ দূষন থেকে রক্ষা করবে এবং বাইরের ধুলাবালি প্রতিহত করবে এ রঙ। এমনই একটি রঙ বা সিরামিক আস্তরনের নাম গায়না পেইন্ট। জাপানে তৈরী পরিবেশ বান্ধব ও বহুমাত্রিক সুবিধা সম্পন্ন এই রঙ শীঘ্রই বাংলাদেশেও বাজারজাত শুরু হবে।
রোববার বিকালে কক্সবাজারের একটি অভিজাত হোটেলের হল কোরাস হলে আয়োজিত গায়না পেইন্টর-এর বাজারজাতকরণ ও উৎপাদনের লক্ষে কার্যকারিতা প্রদর্শনী অনুষ্টানে এসব তথ্য জানানো হয়।
শুধু তাই নয়, প্রদর্শনীতে আরো জানানো হয়, ঘরের ভেতরের জীবানু প্রশমিত করে। ঘরের ভেতরের অতি গেুনী রশ্মি প্রতিরোধ করে। ঘরের ভেতরের প্রতিধবিœ রোধ করে,আর্দ্রতা কমায়। কেমিক্যাল বর্জন করে সম্পূর্ণ প্রাকৃতিক উপায়ে তৈরী বলে এ রঙ ব্যবহারে শ্বাস-প্রশ্বাসে সমস্যা হয়না,উৎকট গন্ধ থাকেনা এবং চোখ জ্বালা পোড়া করেনা। এ রঙ একবার লাগানোর পর ১৫ থেকে ২০ বছর পর্যন্ত টেকসই হয়। তাই দামেও হবে সাশ্রয়ী। দেয়ালকে মজবুত ও দীর্ঘস্থায়ী করে।
এ সময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন গায়না এশিয়ার ম্যানেজিং ডিরেক্টর ওকোডা টাতসুইয়া,ডিরেক্টর আরিতোমি মিৎসুইউকি এবং গায়না বাংলাদেশ লিমিটেডের ডিরেক্টর চিন্ময় বড়–য়াসহ অতিথিরা উপস্থিত ছিলেন।
প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজিং ডিরেক্টর ওকোডা টাতসুইয়া জানান, জাপান  এরোসপেস এক্সপ্লোরেশান এজেন্সী (জাক্সা) অনুমোদিত এ রঙ্ বিভিন্ন রকেট এবং স্যাটেলাইটে ব্যবহার করা হয়। এমনকি বাড়ি,কল-কারখানা,নৌযান ও যানবাহন সবক্ষেত্রে ব্যবহার উপযোগী। এটি জাপান সরকারের ভুমি,অবকাঠামো,পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রনালয় এ রঙকে অগ্নিপ্রতিরোধক হিসাবে স্বীকৃতি দিয়েছে। তিনি আরো জানান,এ রঙ ব্যবহারে বা ঘরের দেওয়ালে বা টিনের চালে লাগানো জন্য সকল সাপোর্ট কোম্পানীর পক্ষ থেকে দেওয়া হবে।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like