টেকনাফে ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে আহত ১০

imagesটেকনাফ প্রতিনিধি, কক্সবাজারটাইমসডটকম, ২৯ জানুয়ারি : টেকনাফে শুক্রবার বিকেলে হ্নীলায় বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের একটি খেলায় তচ্ছু ঘটনাকে কেন্দ্র করে উভয়পক্ষে সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে ঘটনায় ১০জন আহত হয়েছেন।
এ ঘটনায় পর পর টেকনাফ-কক্সবাজার সড়ক প্রায় দুই ঘন্টা অবরোধ করে রাখলে টেকনাফ থেকে ছেড়ে যাওয়া পযর্টকবাহী ও মালবাহী প্রায় শতাধিক দুরপাল্লার যানবাহন আটকেপড়াই যাত্রীদের দূর্ভোগ পোহাতে হয়।
ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী কয়েকজন জানান, শুক্রবার বিকেলে হ্নীলায় বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের ১৪তম খেলা চলছিল। এ খেলায় অংশ নেন লেদা লাল মিয়া স্মৃতি একাদশ ও হ্নীলা একাদশ। হ্নীলা ইউনিয়ন ক্রীড়া পরিষদের ব্যানারে এ খেলা পরিচালনা করা হচ্ছে। লেদা লাল মিয়া স্মৃতি একাদশের প্রতি রেফারীর বৈষম্যমুলক আচরণের অভিযোগ তুলে টূর্ণামেন্ট কমিটির সদস্য সচিব মোস্তাক আহমদকে অবহিত করেন ম্যানেজার মো. জাহাঙ্গীর। তারই সূত্র ধরে, খেলা চলাকালিন বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে কমিটির অপর সদস্য শামসুল আলমের সঙ্গে কাটাকাটির এক পযার্য়ে লাটিসোঠা নিয়ে মো. জাহাঙ্গীরের উপরে হামলা চালালে খেলা পরিচালনা কমিটি ও লেদা লাল মিয়া স্মৃতি একাদশের দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে উভয়পক্ষের ১০জন আহত হয়। আহত ব্যক্তি হলো- মো. জাহাঙ্গীর, মো. ফাহাদ, মো. রফিক, আবছার উদ্দিন, রবি আলম, রাজু আহমদ, হাবিবুল্লাহ, মো. জসিম, ছৈয়দ আলম, নুর আজিজ আহত হয়েছেন। আহত লোকজনকে উপজেলার বিভিন্ন স্বাস্থ্য কেন্দ্রে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। পরে লেদা লাল মিয়া স্মৃতি একাদশে সমর্থক ও স্থানীয় লোকজন টেকনাফ-কক্সবাজার সড়ক অবরোধ সৃষ্ট করলে প্রায় দুই ঘন্টা যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকায় দূর পাল্লার যাত্রীদের দূভোর্গ পোহাতে হয়।
খবর পেয়ে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাফর আহমদ ঘটনাস্থলে গিয়ে সৃষ্ট ঘটনার সুষ্ঠু সমাধানের আশ্বাস দিয়ে অবরোধ কারীরা অবরোধটি তুলে নেয়। এরপর রাত সাড়ে সাতটার দিকে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক হয়।
টেকনাফ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জাফর আহমদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ব্যাপারে টুর্ণামেন্ট কমিটির সঙ্গে সমাধানের চেষ্টা চলছে।
লেদা লাল মিয়া স্মৃতি একাদশের ম্যানেজার মো. জাহাঙ্গীর বলেন, রেফারীর বৈষম্যমুলক আচরণের টূর্ণামেন্ট কমিটির সদস্য সচিব মোস্তাক আহমদকে অবহিত করা হলে অপর সদস্য শামসুল আলমের নেতত্বে আমাদের হামলা চালায়। এতে উভয়পক্ষে অন্তত ১০জন আহত হয়েছে।
হ্নীলা ইউনিয়ন ক্রীড়া পরিষদের আহবায়ক কায়সার উদ্দিন আহমদ বলেন, তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে লেদা লাল মিয়া স্মৃতি একাদশ না খেলে মাঠ থেকে চলে যায়। এরপর কি হয়েছে আমি জানি না।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like